সাবেক প্রেমিককে সাবেক প্রেমিকার শুভেচ্ছা।

2
227

হলিউডের প্রখ্যাত অভিনেতা উইলিয়াম ডেফোর মতে, রবার্ট প্যাটিনসনকে ব্যাটম্যান হিসেবে দারুণ মানাবে। ভ্যারাইটিকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে উইলিয়াম ডেফো বলেছেন, ‘রবার্ট প্যাটিনসনের চিবুক খুব শক্তিশালী আর স্বতন্ত্র। এই চিবুক ব্যাটম্যানের একটা গুরুত্বপূর্ণ অংশ। আপনি কি সাধারণ চিবুকের কাউকে ব্যাটম্যানের চরিত্রে কল্পনা করতে পারেন? আমার বিশ্বাস, পারেন না।’

২০০৫ সালে ‘ব্যাটম্যান বিগিনস’ ছবিতে অভিনয় করেছেন ক্রিশ্চিয়ান বেল। এবার টরন্টো আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উত্‍সবে এসে রবার্ট প্যাটিনসন প্রসঙ্গে ভ্যারাইটিকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি বললেন, ‘দারুণ পছন্দ! রবার্ট প্যাটিনসন এমনিতেই খুব ইন্টারেস্টিং। আমি নিশ্চিত, তিনি এই চরিত্রে খুব ভালো কিছু করবেন।’

‘টোয়াইলাইট’ ছবিতে অ্যাডওয়ার্ড কলেনের চরিত্রে অভিনয় করে রবার্ট প্যাটিনসন প্রমাণ করেছেন, দুর্দান্ত গতিতে উড়ে উড়ে গাছে চড়ে আর শরীর দিয়ে রোদ খায়, সেই ভ্যাম্পায়ারও হতে পারে আদর্শ প্রেমিক পুরুষ। এরই মধ্যে জানা হয়ে গেছে, এবার ব্যাটম্যানের পরবর্তী ছবিতে সেই রবার্ট প্যাটিনসন হয়ে উঠবেন ‘ব্রুস ওয়েন’। ম্যাট রিভসের পরিচালনায় ‘ব্যাটম্যান’ সিরিজের পরবর্তী ছবি ‘কেপড ক্রুসেডর’-এ ‘ব্যাটম্যান’ চরিত্রে দেখা যাবে এই ‘টোয়াইলাইট’ তারকাকে। ম্যাট রিভস নিজেই এই ছবির চিত্রনাট্য লিখছেন। এ বছর শেষে শুরু হবে শুটিং।

রবার্ট প্যাটিনসনের আগে সুপারহিরো ব্যাটম্যান অ্যাডাম ওয়েস্ট, মাইকেল কিটন, ভল কিলমার, জর্জ ক্লুনি, ক্রিশ্চিয়ান বেল ও বেন অ্যাফ্লেকের শরীরে জীবন্ত হয়েছে।

এদিকে হলিউড তারকা ক্রিস্টেন স্টুয়ার্ট তাঁর সাবেক প্রেমিক রবার্ট প্যাটিনসনকে নিয়ে উচ্ছ্বসিত প্রশংসা করেছেন। এবার টরন্টো চলচ্চিত্র উৎসবে নিজের নতুন ছবি ‘সেবার্গ’ নিয়ে গিয়েছিলেন তিনি। সেখানে ভ্যারাইটি থেকে ক্রিস্টেন স্টুয়ার্টের কাছে নতুন ‘ব্যাটম্যান’ নিয়ে জানতে চাওয়া হয়। মুহূর্তেই সাবেক প্রেমিকের সঙ্গে তাঁর চার বছরের প্রেম ভেঙে যাওয়ার পর সেই কষ্টের দিনগুলোর কথা ভুলে যান ক্রিস্টেন স্টুয়ার্ট। শুভেচ্ছা জানান রবার্ট প্যাটিনসনকে। বললেন, ‘নতুন ব্যাটম্যান হিসেবে যাকে পছন্দ করা হয়েছে, তা একেবারেই সঠিক হয়েছে। দুর্দান্ত সিদ্ধান্ত! আমি তো বলব, ব্যাটম্যান চরিত্রটি করার জন্য ও একেবারে যথাযথ। আমি ভীষণ খুশি হয়েছি। ওর জন্য অনেক অনেক শুভকামনা।’

স্টেফানি মেয়ারের ফ্যান্টাসি উপন্যাস ‘টোয়াইলাইট’ অবলম্বনে ‘টোয়াইলাইট’ সিরিজের ছবিগুলোতে অভিনয় করে রাতারাতি দারুণ জনপ্রিয় হন রবার্ট প্যাটিনসন ও কারস্টেন স্টুয়ার্ট। এই ছবির কাজের ফাঁকেই তাঁদের মাঝে তৈরি হয় কঠিন প্রেম।

সবকিছু ভালোভাবেই চলছিল। হঠাৎ নির্মাতা রুপার্ট স্যান্ডার্সের সঙ্গে ক্রিস্টেন স্টুয়ার্টের ঘনিষ্ঠতার খবর আর ছবি ফাঁস হওয়ায় মুষড়ে পড়েন রবার্ট প্যাটিনসন। ওই সময় হলিউডে এক বাড়িতেই থাকতেন তাঁরা। কিন্তু প্রেমিকার কাছ থেকে অপ্রত্যাশিতভাবে প্রতারিত হওয়ার পর রবার্ট প্যাটিনসন সেই বাড়ি থেকে চলে যান। এর পর প্রকাশ্যে নিজের ভুল স্বীকার করেন এবং ক্ষমা চান ক্রিস্টেন স্টুয়ার্ট। শেষ পর্যন্ত ফিরে পান প্রেমিক রবার্ট প্যাটিনসনকে। কিন্তু একদিন ক্রিস্টেন স্টুয়ার্টের ফোনে ভেসে ওঠে রুপার্ট স্যান্ডার্সের পাঠানো বার্তা দেখার সঙ্গে সঙ্গে চার বছরের সম্পর্ক ভেঙে দেওয়ার চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেন ‘টোয়াইলাইট’ তারকা রবার্ট প্যাটিনসন।

2 COMMENTS

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here